আপনাকে ঠকাতে চন্দনা ইলিশ

0
210
চন্দনা ইলিশ
চন্দনা ইলিশ
Print Friendly, PDF & Email

পহেলা বৈশাখে বাড়ির সবাই চায়  খাবার তালিকায় ইলিশ খেতে। আপনিও হয়তো সবার ইচ্ছে পূরণে ছুটছেন বাজারে। পুরো বাজার ঘুরে বেড়ালেন। সাধের সঙ্গে সাধ্যের মিল খুঁজতেই গেল সিংহ সময়। অবশ্য, অনেক কষ্টে মিললো একটা। মাঝারি ধরনের সেই ইলিশ কিনে ফিরলেন বাড়ি। কিন্তু খেতে বসে দেখা গেল বিপত্তি। দেখতে ইলিশ হলেও আদতে তা ইলিশ নয়। স্বাদ বা মজা কোনোটাই মিলল না সবার মন খারাপ।

মৎস কর্মকর্তারা বলছেন, দেখতে ইলিশ মাছের মতো হলেও ওগুলো ইলিশ নয়। এগুলো চন্দনা ইলিশ নামে পরিচিত। যারা বিষয়টি জানেন না তারা ইলিশ মাছ ভেবে প্রতি নিয়ত ঠকছেন।

কী করে চিনবেন: এসব মাছ দেখতে একটু ছোট। চোখগুলো সাধারণ ইলিশের তুলনায় বড়। খানিকটা চেপ্টা ও সাধারণ ইলিশের তুলনায় মোটা হয়ে থাকে। স্বাদেও মোটেই ইলিশ মাছের মত নয়।

শুধু পহেলা বৈশাখই নয়, এক শ্রেণীর অসাধু ব্যবসায়ী সারা বছর জুড়েই এমন ধোকায় ফেলছেন আপনাকে। দেখতে ইলিশ মাছের মতো মনে হলেও এগুলো মোটেও দেশি মাছ নয়। কিছু অসাধু ব্যবসায়ী বিদেশ থেকে মাছগুলো কিনে এনে আমাদের দেশে ইলিশ মাছ হিসাবে বিক্রি করছে। এতে এক দিকে যেমন সাধারণ ক্রেতারা ঠকছেন, তেমনি আমাদের দেশীয় ঐতিহ্য ইলিশ মাছের বদনাম হচ্ছে।

পহেলা বৈশাখ উপলক্ষে বাঙালিদের পান্তা-ইলিশ খাওয়ার শখ মেটাতে গিয়ে বেশি মুনাফার আশায় বাজারে নেমেছেন কিছু ব্যবসায়ী। তারা ইলিশ হিসেবে আমাদের বাজারের ব্যাগে তুলে দিচ্ছেন নকল ইলিশ। ভুক্তভোগী ক্রেতারা জানান, বাজারে এখন পাওয়া যাচ্ছে ইলিশের মত নকল ইলিশ।

কিছু হকার মিটি মিটি আলোয় বিক্রি করছে ইলিশ মাছ। রাজধানী ঢাকা শহরের বিভিন্ন ফুট ওভার ব্রিজের নিচে বা উপরে সন্ধ্যায় দেখা মিলছে এসব ইলিশের। ক্রেতাদের চেনার কোনো উপায় নেই। আপনি কিছু না বুঝেই খানিকটা সস্তা পেয়ে মাছের লেজ ধরে বাড়ি ফিরলেন। এরপর রান্না শেষে বুঝলেন আপনি ঠকেছেন।

Comments

comments